জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষা সংক্রান্ত জরুরী বিজ্ঞপ্তি

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১ সালের ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স ২য় বর্ষ পরীক্ষা সংক্রান্ত জরুরী বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে এক বিজ্ঞপ্তিতে এ সংক্রান্ত তথ্য জানানো হয়েছে।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অধীনে অনুষ্ঠিত পরীক্ষা কেন্দ্রের অধ্যক্ষ / ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্ট সকলের দৃষ্টি আকর্ষণপূর্বক জানানো যাচ্ছে যে, ২০২১ সালের ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্সে ২য় বর্ষ পরীক্ষার পরিবর্তিত সময়সূচী অনুযায়ী আগামী ১২/০৭/২০২৩ ইং তারিখ থেকে অনুষ্ঠিত হবে। এ সংক্রান্ত সমস্ত প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।

অনার্স /মার্স্টাস/ ডিগ্রি পরীক্ষার প্রিমিয়াম সাজেশন পেতে ফেসবুক পেজে মেসেজ দিন। https://www.facebook.com/PremiumSuggestion

প্রতিটি কেন্দ্রের অধ্যক্ষ/ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাগণকে জানানো যাচ্ছে যে, সংশ্লিষ্ট পরীক্ষা কমিটির আহবায়ক এবং একজন সদস্যের (শিক্ষক) এর নাম, মোবাইল নম্বর ও ই-মেইল নম্বর ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স ২য় বর্ষ শাখার ই-মেইল (nudegreepassexam@gmail.com) ঠিকানায় পরীক্ষা শুরুর পূর্বেই প্রেরণের জন্য অনুরোধ করা হলো।

আরো দেখুন- ডিগ্রি ২য় বর্ষ পরীক্ষার সময়সূচি ২০২৩

২০২১ সালের ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স ২য় বর্ষ পরীক্ষার কেন্দ্রের প্রতি বিশেষ নির্দেশাবলী

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে অনুষ্ঠিত পরীক্ষা কেন্দ্রের অধ্যক্ষ / ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্ট সকলের দৃষ্টি আকর্ষণপূর্বক জানানো যাচ্ছে যে, সম্প্রতি পরীক্ষা গ্রহণ ও উত্তরপত্র প্রেরণের ক্ষেত্রে যেসব ভুল পরিলক্ষিত হচ্ছে তা নিম্নরুপ:

পরীক্ষা কমিটি পরীক্ষার দিন ট্রেজারী থেকে প্রশ্নপত্রের প্যাকেট গ্রহণের সময় সময়সূচী অনুযায়ী সঠিক প্রশ্নপত্রের প্যাকেট আনার বিষয়টি নিশ্চিত করবেন। পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রশ্নপত্রের প্যাকেট উন্মুক্ত করার ( প্যাকেট কাটার) পূর্বে সঠিক কোডের প্রশ্নপত্রের প্যাকেট আছে কিনা তা নিশ্চিত হবার জন্য প্রতিটি প্যাকেট যাচাই করে নিশ্চিত হয়ে। প্যাকেট উন্মুক্ত করবেন। পরীক্ষর সময়সূচীর বাইরে অন্য কোন কোর্সের প্রশ্নের প্যাকেট খোলা হ’লে তার দায় দায়িত্ব সংশ্লিষ্ট অধ্যক্ষ এবং পরীক্ষা কমিটির সদাগণের উপর বর্তাবে এবং এ জন্য তাদের বিরুদ্ধে নিয়মানুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পরীক্ষার উত্তরপত্র এবং হাজিরাপত্রে ইনভিজিলেটর যথাযথভাবে যাচাই না করে স্বাক্ষর করেন। প্রায়ই হাজিরা পত্রে উত্তর পর OMR ফরমের ক্রমিক নম্বর, উত্তরপত্রে রোল নম্বর, রেজিঃ নম্বর কোর্স কোড ভুল থাকে। যদিও প্রবেশপত্র ও রেজিঃ কার্ড যাচাই করে উত্তরপত্র এবং হাজিরা পত্রে ইনভিজিলেটরের স্বাক্ষর করার বিধান রয়েছে।

কিছু কিছু উত্তরপত্রের বান্ডেলের উপরের বোর্ডে উল্লেখিত বান্ডেল লেভেলে বিষয় ও কোর্স কোডের সাথে বান্ডেলের ভিতরের উত্তরপত্রের বিষয় ও বিষয়কোড ভিন্ন পাওয়া যায়।

বহিষ্কৃত পরীক্ষার্থীর Report ফরম ও বহিষ্কৃত উত্তরপত্র যথাযথভাবে পূরণ ও প্রেরণ করা হয় না। Report এ বহিস্কারের কারণ সুস্পষ্টভাবে উল্লেখ করে Reported উত্তরপত্র ও Report ফরম পৃথকভাবে পাঠাতে হবে।

সম্প্রতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে, পরীক্ষার্থী উত্তরপত্র জমা না দিয়ে লুকিয়ে নিয়ে চলে যায় এবং পরীক্ষা হল ত্যাগ করে। এছাড়া অতিরিক্ত উত্তরপত্র গ্রহণ করে তা বাড়ীতে নিয়ে প্রশ্নত্তর লিখে পরবর্তী পরীক্ষায় সংযোজন করে। ইনভিজিলেটরের অসাবধানতার ফলে এ ঘটনা ঘটে থাকে। পরীক্ষা শেষে উত্তরপত্রের সংখ্যা না মিলানো পর্যন্ত পরীক্ষার্থীদের নিজ নিজ আসনে বসিয়ে রেখে সকল উত্তরপত্র পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে। এতদসত্ত্বেও ধরনের ঘটনা ঘটলে / মূল উত্তরপত্র কম পাওয়া গেলে ঐ রুমের উত্তরপত্র ও OMR ফরম পৃথকভাবে সংরক্ষন করে নিম্নস্বাক্ষরকারীকে অবহিত করতে হবে। কোন অবস্থাতেই ঐ রুমের উত্তরপত্র OMR অন্য কক্ষের উত্তরপত্র ও OMR ফরমের সাথে মেলানো যাবে না।

পরীক্ষার হলে পরীক্ষার্থীর পরিবর্তে ভূয়া পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে থাকে। এ ধরনের অপরাধ রোধে মূল প্রবেশপত্র এবং রেজিস্ট্রেশন কার্ড ছাড়া পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে না পারার বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে। এছাড়া মোবাইল ফোন নিয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ শান্তিযোগ্য অপরাধ এ বিষয়টি পরীক্ষার্থীদের জানাতে হবে।

পরীক্ষা হলে নকল প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় সকল উদ্যোগ গ্রহণ করতে হবে। প্রয়োজনে জেলা প্রশাসনের সহযোগিতা গ্রহণ করতে হবে। পরীক্ষা পরিবেশ বিঘ্নিত হওয়ার আশংকা থাকলে উপর্যুক্ত প্রমাণসহ (নকলের কপি, ছবি ইত্যাদি) পরীক্ষার্থীর রোল, রেজিস্ট্রেশন ও শিক্ষাবর্ষ উল্লেখ করে গোপনীয় প্রতিবেদন নিম্নস্বাক্ষরকারী বরাবরে প্রেরণ করতে হবে। পরীক্ষা সংক্রান্ত অপরাধ এবং এর শাস্তি সংক্রান্ত বিধান (যা একাডেমিক কাউন্সিল ও সিন্ডিকেট কর্তৃক অনুমোদিত) এই সাথে সংযুক্ত করা হলো। এ বিধান নোটিশ বোর্ড এ প্রদর্শনসহ সকল শিক্ষক এবং পরীক্ষার্থীদের অবহিত করতে হবে।

উত্তরপত্র বান্ডেল লেভেলের বিষয় ও কোর্স কোড দেখে পরীক্ষককে দেওয়া হয়। ফলে উত্তরপত্র গ্রহণ করে বাড়ীতে নিয়ে খোলার পর পরীক্ষক বুঝতে পারেন তিনি স্কুল বিষয় কোডের উত্তরপত্র পেয়েছেন। এর ফলে উত্তরপত্র মূল্যায়ন প্রক্রিয়া বিলম্বিত হয় এবং ফলাফল প্রকাশে সমস্যা সৃষ্টি হয়। উত্তর পত্রের বান্ডেল তৈরীর সময় সঠিক বান্ডেল লেভেল এবং সে অনুযায়ী উত্তরপত্র প্যাকেট করার বিষয়টি পরীক্ষা কমিটি নিশ্চিত করবে।

উপরে উল্লেখিত ভুল সম্পর্কে সতর্ক থেকে পরীক্ষা গ্রহণ এবং উত্তরাপত্র প্রেরণে সংশ্লিষ্টদের আরো সতর্ক থাকার নির্দেশনা প্রদানের জন্য অনুরোধ করা হলো।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিগ্রী ২য় বর্ষ পরীক্ষা সংক্রান্ত জরুরী বিজ্ঞপ্তি

পরীক্ষা শৃঙ্খলা সম্পর্কিত অপরাধ:

• পরীক্ষা কক্ষে একে অপরের সাথে যোগাযোগ করা ও কথাবার্তা বলা

•  পরীক্ষা কক্ষে ধূমপান করা;

• পরীক্ষার হলে মোবাইল ফোন বা কোন ইলেক্ট্রনিক্স সামগ্রী বহন;

• দূষণীয় / অননুমোদিত কাগজপত্র সঙ্গে রাখা;

• দূষণীয় / অননুমোদিত কাগজপত্র হতে উত্তরপত্রে লেখা;

• প্রশ্নপত্রে উত্তর লিখা/প্রশ্নপত্রে লেখা উত্তর হতে উত্তরপত্রে লেখা;

• পরীক্ষার হলে মোবাইল ফোন বা কোন ইলেক্ট্রনিক্স সামগ্রী ব্যবহার করে উত্তরপত্রে লেখা;

• পরীক্ষা কক্ষের নির্দিষ্ট স্থানের পরিবর্তে অবৈধভাবে অন্য স্থানে আসন গ্রহণ করা:

• ডেক্স, বেঞ্চ, কাপড়, শরীরের অঙ্গ-প্রতঙ্গ, ব্ল্যাকবোর্ড, কক্ষের দেওয়াল বা অন্য কিছুতে লেখা এবং সেখান থেকে

উত্তরপত্র দেখা;

• উত্তরপত্রে অস্বাভাবিক, আপত্তিকর কিছু লিখা, অযৌক্তিক কোন মন্তব্য করা অথবা উত্তরপত্রের মধ্যে টাকা রাখা:

• রোল নম্বর পরিবর্তন / পরষ্পর রোল নম্বর বিনিময় করা (উত্তরপত্র একে অপরের সাথে পরিবর্তন); (ঠ) মিথ্যা অজুহাত দেখিয়ে বিশেষ সুবিধা গ্রহণ / সুবিধা গ্রহণের চেষ্টা করা:

• মিথ্যা পরিচয় প্রদান করে অবৈধভাবে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করা;

• পরীক্ষার কক্ষ হতে উত্তরপত্র বাইরে পাচার করা বা বাইরে থেকে লেখা উত্তরপত্র সংযোজন করা:

• উত্তরপত্রের কভার পৃষ্ঠা পরিবর্তন করা:

• ইনভিজিলেটরের নিকট উত্তরপত্র দাখিল না করে পরীক্ষার হল ত্যাগ করা, ইনভিজিলেটর কর্তৃক চাহিবামাত্র দূষণীয় কাগজপত্র প্রদান না করে তা নাগালের বাইরে ফেলা / ফেলে দেওয়ার চেষ্টা করা/গিলে ফেলা:

• উত্তরপত্র বিনষ্ট করা/ছিড়ে ফেলা, দূষণীয় কাগজপত্র / দ্রব্যাদি, উত্তরপত্র বা প্রবেশপত্র ইত্যাদি যথাযথ কর্তৃপক্ষের নিকট হস্তান্তর করতে অস্বীকৃতি জ্ঞাপন করা বা জব্দ করার ক্ষেত্রে কোনরুপ বাধা সৃষ্টি করা;

• পরীক্ষা কক্ষে পরীক্ষার কাজে নিয়োজিত ইনভিজিলেটর কর্তব্যরত ব্যক্তি সম্পর্কে কটূক্তি, গালাগাল, তাঁর সাথে অসদাচরণ বা তাঁকে কোনরুপ ভীতি প্রদর্শন করা। পরীক্ষার দায়িত্বে নিয়োজিত কোন ব্যক্তি/ব্যক্তিবর্গকে পরীক্ষাল হলে বা হলের বাইরে লাঞ্ছিত করা বা লাঞ্ছিত করার চেষ্টা করা। পরীক্ষা চলাকালীন পরীক্ষার কক্ষে কেন্দ্র চত্ত্বর বা বাইরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি, স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তা অথবা পরীক্ষা পরিচালনার সাথে জড়িত কোন ব্যক্তির সাথে অসদাচরণ করলে বা তাঁকে দৈহিক আক্রমন করলে;

• সুষ্টভাবে পরীক্ষা অনুষ্ঠানে কোনরূপ বাধা সৃষ্টি, গোলযোগ সৃষ্টি, অন্যকে পরীক্ষায় অংশগ্রহণে বাধা প্রদান, অন্য পরীক্ষার্থীকে পরীক্ষার হল ত্যাগে বাধ্য না উচ্চানি প্রদান, পরীক্ষা কক্ষ ভাংচুর, আসবাবপত্র ভাংচুর করা বা আগুন দেওয়া।

ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স ২য় বর্ষ পরীক্ষা ২০২১ উত্তরপত্র, হাজিরাপত্র ও OMR প্যাকেট/বান্ডেল প্রস্তুতকরণ ও আনুষঙ্গিক নিয়মাবলী :

• উত্তরপত্র ও OMR ফরমে কোন প্রকার সীল অথবা দাগ দেয়া যাবে না।

• বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক সরবরাহকৃত উত্তরপত্র ও আনুষঙ্গিক কাগজপত্র কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (নিরাপত্তা ও গোপনীয়তার সাথে সরাসরি তত্ত্বাবধানে সংরক্ষণ করতে হবে। প্রতিদিন উপস্থিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যানুযায়ী উত্তরপত্র বিতরণ করবেন এবং বিতরণকৃত হিসাব রাখবেন। সংশ্লিষ্ট পরীক্ষা পরিচালনা কমিটি এ মর্মে নিশ্চিত হবেন যে পরীক্ষার উত্তরপত্র বৈধ পরীক্ষার্থী ব্যতীত অন্য কারো নিকট হস্তান্তর করা হবে না। অবৈধ পরীক্ষার্থী সনাক্তকরণে পরীক্ষার্থীর রেজিস্ট্রেশন কার্ড ও প্রবেশপত্রের ছবি যাচাই করাবেন। পরীক্ষা শেষে সংশ্লিষ্ট। ইনভেজিলেটর ঐ কক্ষের সকল পরীক্ষার্থীর উত্তরপত্র জমা পেয়েছেন মর্মে নিশ্চিত হবার পর পরীক্ষার্থীরা কক্ষ ত্যাগ করবে।

• সরবরাহকৃত উত্তরপত্রের পুঙ্খানুপুঙ্খ হিসাব রাখতে হবে। প্রতিটি উত্তরপত্রের হিসাব প্রদানে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র কর্তৃপক্ষ বাধা থাকবেন।

• পরীক্ষা শুরু হওয়ার পূর্বে কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও ইনভিজিলেটরগণ ঐ দিনে অনুষ্ঠিতব্য পরীক্ষার প্রতিটি বিষয় এবং পরা কোড সম্পর্কে নিশ্চিত হয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রের প্রতিটি কক্ষের সকল পরীক্ষার্থীকে তা বিশেষভাবে অবহিত করবেন। পরীক্ষার্থীরা তাদের উত্তরপত্র OMR এর নির্দিষ্ট স্থানে পরীক্ষা কোড-১১০২, প্রবেশ পত্রে উল্লিখিত বিষয় কোড, রোল নম্বর ও রেজিস্ট্রেশন নম্বর লিখেছে এবং সে অনুযায়ী বৃত্ত ভরাট করেছে, এ মর্মে নিশ্চিত হয়েOMR কাম এর নির্ধারিত স্থানে কক্ষপরিদর্শক স্বাক্ষর করবেন। উত্তরপত্রের পরীক্ষক অংশে কোন প্রকার দাগ / কোন কিছু লেখা যাবে না।

• পরীক্ষার্থীর অতিরিক্ত উত্তরপত্রের নির্দিষ্ট স্থানে কক্ষ পরিদর্শক স্বাক্ষর করবেন (কোন প্রকার সীল ব্যবহার করা যাবে না) এবং সংশ্লিষ্ট অতিরিক্ত উত্তরপত্রটির ক্রমিক নম্বর পরীক্ষার্থী সঠিক লিখেছে কিনা তা নিশ্চিত করবেন।

• অতিরিক্ত উত্তরপত্র অথবা মূল উত্তরপত্র পাঞ্চিং করা যাবে না। প্রয়োজনে সুই-সুতা দিয়ে সেলাই করে দিতে হবে। প্রতিদিনের পরীক্ষার হাজিরা পত্রে পরীক্ষার্থীর স্বাক্ষর কক্ষ পরিদর্শক কর্তৃক নিতে হবে। প্রবেশপত্র অনুযায়ী পরীক্ষার্থীর রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড এবং উত্তরপত্রের ক্রমিক নম্বর সঠিক আছে কি-না তা যাচাই করে কক্ষ পরিদর্শক হাজিরা পত্রে স্বাক্ষর করবেন।

• উল্লেখ্য, হাজিরা পত্রে উত্তরপত্রের ক্রমিক নম্বর ভুল লিখলে ফলাফল অনুপস্থিত দেখিয়ে ফলাফল প্রকাশ করা হবে।

• যদি কোন পরীক্ষার্থীর রেজিস্ট্রেশন নম্বর অথবা বিষয় কোড লিখতে ভুল হয় তা হলে তা একটানে কেটে সঠিকভাবে লিখতে হবে। বৃত্ত অ ভুল হলে তা ইরেজার দ্বারা মধ্যমাজা না করে/ রেড দ্বারা না মুছে / সাদা ফ্লুইড না লাগিয়ে সঠিক বৃত্তটি পুনরায় ভরাট করতে হবে। এ ক্ষেত্রে একই সারিতে একাধিক বৃত্ত ভরাট থাকতে পারে। ভুলভাবে ভরাটকৃত OMR দাম গুলি আলাদাভাবে প্যাকেট করার প্রয়োজন নেই।

উত্তরপত্রের বান্ডেল প্রস্তুত করণ ও প্রেরণ :

• উত্তরপর বান্ডেল/প্যাকিং এর সময় বিষয় ভিত্তিক পত্রকোড অনুযায়ী আলাদা করতে হবে, কোনভাবেই এক পত্র কোডের উত্তরপত্র অন্য কোন পর কোডের উত্তরপত্রের সাথে দেয়া যাবে না। এ ধরনের ভুলের জন্য কেন্দ্রের অধ্যক্ষ / ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দায়ী থাকবেন।

• উত্তরপত্রের বান্ডেল/প্যাকেট এর কাজ অবশ্যই কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার উপস্থিতিতে ও সরাসরি তত্ত্ববধানে সম্পন্ন করতে হবে।

• রেজিস্ট্রেশন নম্বর সম্বলিত কোন প্রকার টপশীট উত্তরপত্রের সাথে অথবা বান্ডেল প্যাকেটের ভিতর রাখা যাবে না।

• প্রতিদিনের পরীক্ষার বিষয় ও পত্রকোড অনুযায়ী প্রেরিত উত্তরপত্রের একটি বিবরণী তৈরী করে সংরক্ষণ করতে হবে। এ বিবরণী গুলো সকল পরীক্ষা শেষে হাজিরা পত্র ও অন্যান্য মালামালের সাথে সংশ্লিষ্ট শাখায় হাতেহাতে জমা দিতে হবে।

• পরীক্ষার দিনগুলোতে কেন্দ্রের সকল বিষয়ের উত্তরপত্র বিষয়ওয়ারী ও বিষয় কোড ভিত্তিক অনুর্ধ্ব ৫০ (পঞ্চাশ) টি করে সাজিয়ে করোগেটেড বোর্ড দ্বারা বান্ডেল করে বান্ডেলের উপর দেশে লাগাতে হবে এবং বাতেলগুলি বিষয় কোড ভিত্তিক হলুদ কাপড় এবং এর মধ্যে ০১টি প্রশ্নপত্র দিয়ে মুড়িয়ে পরীক্ষার্থীদের উত্তরপত্র প্যাকেট করতে হবে। উত্তরপত্রের সকল প্যাকেট বীমাকৃত ডাকযোগে/বিশেষ প্রতিনিধির। মাধ্যমে জনাব মোঃ আমীর খইয়াম, উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স (২য় বর্ষ), জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়, গাজীপুর-১৭০৪ বরাবর পাঠাতে হবে। বাস/ রেলওয়ে কিংবা লঞ্চ / রীমারে কোন উত্তরপত্র পাঠানো যাবে না।

• সকল কেন্দ্র থেকে প্রতিদিনের পরীক্ষা শেষে বহিষ্কৃত পরীক্ষার্থীদের উত্তরপত্র রিপোর্টসহ আলাদাভাবে প্যাকেট করে প্যাকেটের উপরে বহিষ্কৃত কথাটি লালকালি দিয়ে দিখে জনাব মোঃ আমীর খইয়াম, উপ-পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, ডিগ্রী পাস ও সার্টিফিকেট কোর্স (২য় বর্ষ), জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়, গাজীপুর-১৭০৪ ঠিকানায় রেজিষ্টার্ড ডাকযোগে হাতে হাতে প্রেরণ করতে হবে। সম্প্রতি উত্তরপত্র জমা না দিয়ে পরীক্ষার্থী পরীক্ষা কক্ষ ত্যাগ করার প্রবনতা লক্ষ করা যাচ্ছে। সতর্কতা অবলম্বন সত্ত্বেও যদি কোন কক্ষে উপস্থিতবপরীক্ষার্থীর চেয়ে উত্তরপত্র কম পাওয়া যায়, সেক্ষেত্রে ঐ কক্ষের সকল উত্তরপত্র এবং OMR ফরমের পরীক্ষার্থীর অংশ পৃথক প্যাকেট করে। প্রতিনিধি মারফত বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রেরণ করবেন। ঐ কক্ষের উত্তরপত্র কোন অবস্থাতেই অন্য কক্ষের উত্তরপত্রের সাথে মেলানো যাবে না।

• প্রত্যেক দিনের পরীক্ষা শেষ হওয়ার সাথে সাথেই বান্ডেল এর কাজ সুসম্পন্ন করে উত্তরপত্রসমূহ ডাক যোগে ঐ দিনই নির্ধারিত ঠিকানায় পাঠাতে হবে। যদি কোন বিশেষ কারণে ঐ দিন পার্সেল করা সম্ভব না হয় তাহলে থানা/ ট্রেজারীতে তা সংরক্ষণ করতে হবে এবং বিলমে সহ থানা/ ট্রেজারীতে জমা এবং গ্রহণের তারিখ ও সময় উল্লেখ করে নিরাপদ হেফাজতে সংরক্ষণকারী কর্মকর্তাদের প্রত্যয়ন পত্রসহ বিশ্ববিদ্যালয়ে। উত্তরপত্রের প্যাকেট জমা দেয়ার সময় দাখিল করতে হবে। উত্তরপত্র কোন অবস্থাতেই কেন্দ্রে রাখা যাবে না।

• ঢাকা মহানগরীর ও গাজীপুর জেলার কেন্দ্র সমূহের প্রতিদিনের পরীক্ষা শেষে উত্তরসমূহ ও OMR পরীক্ষার্থীর অংশ) নিয়মানুযায়ী প্যাকেট করে একজন শিক্ষক প্রতিনিধির মাধ্যমে হাতে হাতে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়, গাজীপুর এ জমা দিতে হবে/ বিশেষ কারনে জানা গেলে নিকটস্থ থানা/ ট্রেজারী অফিসে সংরক্ষণ করতে হবে। এক্ষেত্রে উত্তরপত্র সংরক্ষন ও উত্তোলনের সার্টিফিকেট প্রেরণ করতে হবে। উত্তরপত্র কোন অবস্থাতেই কেন্দ্রে রাখা যাবে না এবং OMR ভাগে প্রেরণ করা যাবে না।

• উত্তরপত্র OMR ফরম এর প্যাকেট/বান্ডেলের লেবেলে কোন ক্রমেই কেন্দ্রের সীলমোহর, ভা কর্মী অথবা অন্য কোন প্রকার। চিহ্ন ব্যবহার করা যাবে না । যদি এ রকম কোন চিহ্ন থাকে তবে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র বাতিলসহ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা আহণের জন্য সুপারিশ করা হবে।

OMR ফরম (পরীক্ষার্থীর অংশ) বান্ডিল প্রেরণের নিয়মাবলী 

• পরীক্ষণ শেষে ( উত্তরপত্রের সাথে সংযুক্ত) OMR ফরমের পরীক্ষার্থীর অংশ খুব সাবধানে সঠিকভাবে পারফোরেশন অনুযায়ী) ছিড়ে পৃথক করতে হবে। অনু ২০০ (দুইশত) টি করে OMR ফরম রোল নম্বরের ক্রমানুযায়ী সাজিয়ে বিষয় পত্র কোড অনুযায়ী পৃথক পৃথক ভাবে করোগেটেড বোর্ড দিয়ে প্যাকেট করতে হবে। প্রতিটি প্যাকেটের জন্য ৩ (তিন) কপি OMR ফরম যোগাণের টপসীট তৈরী করতে হবে। টপসীটে পরীক্ষার্থীর রোল নম্বর, অনুপস্থিত পরীক্ষার্থীদের রোল নম্বর বহিষ্কৃত / অভিযুক্ত পরীক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন নম্বর লিখতে হবে। টপসীটের প্রথমকপি OMR ফরম এর প্যাকেটের ভিতর, দ্বিতীয় কপি প্যাকেটের বাইরে আঠা দিয়ে এমনভাবে লাগাতে হবে যেন তা পড়া না যায়। ৩ কপি কেন্দ্রে সংরক্ষণ করতে হবে। উত্তরপত্রের সাথে এ উপশটি প্রেরণ করা যাবে না।

• বিষয় ভিত্তিক আলাদা OMR এর প্যাকেট সমূহ সবুজ মার্কিন কাপড়ে মুড়িয়ে সেলাই ও সীলগালা করে প্রতিদিন পরীক্ষা শেষে পরীক্ষা কমিটির একজন সদস্যের তত্ত্বাবধানে ট্রেজারী অফিসে সংরক্ষণের ব্যবস্থা করে জমাদানের রশিদ গ্রহণ করতে হবে। সকল তত্ত্বীয় পরীক্ষা শেষে পরবর্তীদিন একজন সিনিয়র শিক্ষকের তত্ত্বাবধানে সমুদয় OMR রাছেল ট্রেজারী থেকে উত্তোলনপূর্বক চটের বস্তার ভিতর ঢুকিয়ে সীলগালা করে। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের – আঞ্চলিক কেন্দ্রের পরিচালকের নিকট জমা দিতে হবে। উল্লেখ্য, ট্রেজারী OMR দা উত্তোলনের ডকুমেন্টস্ একই সঙ্গে আঞ্চলিক অফিসে অবশ্যই দাখিল করতে হবে।

• উদ্ধৃত্ত উত্তরপত্র ও আনুষঙ্গিক কাগজপত্র ফেরত প্রদান ও হাজিরাপাত্র প্রেরণ

• সময়সূচী অনুযায়ী সকল পরীক্ষা শেষ হবার ৭ (সাত) দিনের মধ্যে কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার প্রতিনিধি মাধ্যমে যাবতীয় দ্রব্যাদি পরীক্ষা স্টোর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়, গাজীপুর-১৭০৪ শাখায় জমা দিবেন। রোল নম্বরের ক্রমানুসারে বিষয়ওয়ারী পরীক্ষার্থীদের হাজিরাপত্র (স্বাক্ষর লিপি) প্রাত করে বিষয়ওয়ারী কভার পৃষ্ঠা লাগিয়ে আলাদা আলাদাভাবে।বাঁধাই করে পাঠাতে হবে এবং বাঁধাইকৃত কভার পৃষ্ঠায় ডিগ্রী বিষয়ের নাম, কেন্দ্রের নাম ও কেন্দ্র কোড লিখতে হবে। হাজিরা পত্রসমূহের ফটোকপি সংশ্লিষ্ট কলেজকে সংরক্ষণ করে করতে হবে।

সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার পরীক্ষা কমিটির আহবায়ক” এর নাম পদবী ঠিকানা ও মোবাইল নম্বর উল্লেখ পূর্বক অধ্যক্ষের স্বাক্ষরিত প্রত্যায়নপত্র প্রেরণ করতে হবে।

  • কক্ষ ইনভিজিলেটরগণের নাম, ঠিকানা, নমুনা স্বাক্ষর এবং তাঁর পরিদর্শনকৃত কক্ষ নম্বর সহ তালিকা।

প্রাপ্ত ও ব্যবহৃত প্রশ্নপত্রের হিসাব।

  • বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক সরবরাহকৃত উত্তরপত্র ও ব্যবহৃত উত্তরপত্রের হিসাব সহ অব্যবহৃত উলাপন এবং পরীক্ষার সরঞ্জামাদির হিসাব ও উদ্ধৃত মালামাল পরীক্ষা বিভাগের ষ্টোর শাখায় জমা দিতে হবে।

  • পরীক্ষার্থীদের হাজিরা পত্র ছাড়া পরীক্ষার ফলাফল প্রনয়ণের কাজ দারুণ ভাবে বিঘ্নিত হয়, সেহেতু নির্ধারিত সময়ের (০৭ দিনের মধ্যেই সংশ্লিষ্ট দপ্তরে (ডিগ্রী পাস ও সাটিফিকেট কোর্স ২য় বর্ষ) তা জমা দেয়ার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা যাচ্ছে।

পরীক্ষা শেষে নিরাপদ হেফাজত হতে অতিরিক্ত প্রশ্নপত্র গ্রহণ/উত্তোলন

সময়সূচী অনুযায়ী তত্ত্বীয় সকল পরীক্ষা শেষ না হওয়া পর্যন্ত টেজারী/নিরাপদ হেফাজত হতে অতিরিক্ত প্রশ্নপত্রের ট্রাংক গ্রহণ/ উত্তোলন করা যাবে না।

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে EducationsinBD.com এর ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল নোটিশ দেখুন এখানে একসাথে National University Notice Board অনার্স /মার্স্টাস/ ডিগ্রি পরীক্ষার প্রিমিয়াম সাজেশন পেতে ফেসবুক পেজে মেসেজ দিন। https://www.facebook.com/PremiumSuggestion আমাদের ফেসবুক গ্রুপে জয়েন করুন Facebook Group

Leave a Reply