লটারিতে মেয়েদের স্কুলে ছেলে আর ছেলেদের স্কুলে মেয়েদের নাম

সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ভর্তির লটারির ফল প্রকাশ হয়েছে। ১১ জানুয়ারি বিকাল সাড়ে ৩ টায় সরকারি ৩৯০টি স্কুলে ডিজিটাল লটারি অনুষ্ঠিত হয়েছে ঢাকার আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে। করোনার কারণে এবার ১ম থেকে নবম শ্রেণির ভর্তিতে লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী নির্বাচন করা হয়েছে। ফলে দেখা যায় ময়মনসিংহের একটি বালিকা বিদ্যালয়ের ভর্তির ‘সুযোগ’ পেয়েছে তিন ছেলে শিক্ষার্থী।

আরো পড়ুন- সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ভর্তির রেজাল্ট দেখবেন যেভাবে

ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিদ্যাময়ী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে। প্রকাশিত ফলাফলের তালিকায় দেখা গেছে, সেখানে নাম এসেছে তিন ছেলে শিক্ষার্থীর। বিদ্যাময়ী বালিকা বিদ্যালয়ে ‘ভর্তির সুযোগ’ পাওয়া তিন ছেলে শিক্ষার্থী হলো- ফায়াজ জাহাঙ্গীর ইশমাম, মো. জোবায়েরুল হাসান খান ও ফারাবী ইসলাম। চতুর্থ শ্রেণিতে মর্নিং শিফটের ভর্তি তালিকায় এসেছে তাদের নাম।

এ বিষয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নাছিমা আক্তার সাংবাদিকদের বলেন, ওই তিন ছেলে শিক্ষার্থীকে ভর্তি নেওয়া হবে কি না সেই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এখানে আমাদের বলার কিছু নেই।

বিকাশ এপ ডাউনলোড করে লগ ইনে পাবেন ১০০ টাকা ইনস্ট্যান্ট বোনাস, সাথে ৫০ টাকা বোনাস একদম ফ্রী - Bkash App Download Link শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে EducationsinBD এর চ্যানেলের সাথেই থাকুন। আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel

এছাড়াও মোছা. ওয়াসিমা আকতার লুবনা নামের একজন মেয়ে লটারিতে ঠাকুরগাঁও সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ পেয়েছে। এছাড়া লটারিতে নির্বাচিতদের তালিকায় ‘মো. বোরহানুজ্জামান’ নামের একজনের নাম, আইডি দুইবার দেখা গেছে। আর ঠাকুরগাও সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য নির্বাচিত হয়েছে তিনজন ছেলে।

বালিকা বিদ্যালয়ে তিনজন ছেলে ভর্তির সুযোগ পেল, এ প্রশ্নের জবাবে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ আজিজ উদ্দিন বলেন, অভিভাবকদের ভুলের কারণে এমন হয়েছে। আবেদনে নারী এবং পুরুষ অপশন ছিল। এ ক্ষেত্রে কোনেও মেয়ে যদি পুরুষ অপশনে ক্লিক করে তার ক্ষেত্রে এমনটি হতে পারে।

শিক্ষা অধিদপ্তরের এই কর্মকর্তা বলেন, টেলিটক কারিগরি বিষয়টি নিয়ে কাজ করেছে। বিষয়টি তাদের অবহিত করা হয়েছে। কোনোভাবেই ছেলেদের স্কুলে মেয়ে বা মেয়েদের স্কুলে ছেলেদের ভর্তির সুযোগ দেওয়া হবে না বলে জানান এই কর্মকর্তা। সারা দেশে ভর্তির জন্য নির্বাচিত হওয়া ৭ জন শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে এমনটি হয়েছে বলে জানান তিনি।

এদিকে টাঙ্গাইলের বিন্দুবাসিনী সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির লটারিতে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। লটারির মাধ্যমে ভর্তির সুযোগ পাওয়া নামের তালিকায় এক ছাত্রের নাম একাধিকবার রয়েছে। ফলাফল তালিকায় এ রকম একাধিকবার নাম রয়েছে কয়েকজনের। এ অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন করেছেন বঞ্চিত ছাত্রের অভিভাবকরা।

সম্মেলনে জানানো হয়, বিন্দুবাসিনী সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য সোমবার (১১ জানুয়ারি) কেন্দ্রীয়ভাবে লটারি অনুষ্ঠিত হয়। সেই লটারির ফলাফলের বিজয়ী তালিকায় একাধিক ছাত্রের নাম কয়েকবার রয়েছে। ফলাফল তালিকায় দেখা যায়, নাহিয়ান হক স্বাধীন পাঁচবার, আব্দুল্লাহ আল নোমান, সাইদুর রহমান সোহান, আতিকুর রহমান নাবিল, সামিউল ইসলাম, মাজহারুল ইসলামের নাম দুইবার করে রয়েছে।

একজন ছাত্রের নাম একবারই আসার কথা। একাধিক ছাত্রের কয়েকবার করে নাম থাকায় অনেক শিক্ষার্থী বঞ্চিত হয়েছে। এই লটারির ফলাফল বাতিল করে পুনরায় স্বচ্ছতার সঙ্গে লটারি করার জন্য দাবি জানান অভিভাবকরা।

Educations in BD ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel Grameenphone এর মাইজিপি এপ ডাউনলোড করে জিতে নিন ৩ জিবি ফ্রি ইন্টারনেট এবং ফ্রি পয়েন্ট MyGP App Download Now

Leave a Reply